আসছে টেরাবাইট মেমোরির ফোন

terabyte-phone-800x450

স্মার্টফোনে নতুন কোন ডেটা রাখতে চাইলে পুরনো ডেটাগুলো মুছে মেমোরি খালি করে তারপর রাখতে হয়। কারণ আমাদের স্মার্টফোনে পর্যাপ্ত মেমোরি নেই।

স্মার্টফোন বাজারের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হল ছোট একটি ডিভাইসে কি পরিমান ডেটা, ফটো এবং সমগ্র মিউজিক লাইব্রেরি সংরক্ষণ করা যাবে। এটা খুব অবাক করা বিষয় যে, বছরের পর বছর ধরে ফোনগুলোর স্টোরেজ ৬৪ গিগাবাইটের বেশী করা হয়নি। বেশির ভাগ ব্যবহারকারী তাদের স্টাফগুলো রাখার জন্য ক্লাউড স্টোরেজ ব্যবহার করে থাকে। কিন্তু সমস্যা হল ক্লাউড ব্যবহারের জন্য ওয়াই-ফাই এক্সেস দরকার।

সম্প্রতি মেমোরির ডিজাইন এবং গঠনে গবেষণা করা হচ্ছে। ফলে ফোনের মেমোরি বেশী পাওয়ার আশা করা যায়। রাইস বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষণা দল আরআরএএম (resistive random-access memory) প্রযুক্তির ডেভলাপ করেছে। এটি নতুন, আরো স্টোরেজযুক্ত, উচ্চ ক্ষমতা ও কার্যকারিতা সম্পন্ন এবং নির্ভরযোগ্য মেমোরি । তারা এই প্রযুক্তিতে সিলিকন অক্সাইড ব্যবহার করেছেন। আর এই আরআরএএম রুম টেম্পারেচারে ও কম ভোল্টেজে উৎপাদন করা সম্ভব। আরআরএএম এর পরবর্তী পদক্ষেপ ফ্ল্যাশ মেমোরির সীমাবদ্ধতা খুঁজে বের করা।

পরিশেষে বলা যায়, ভবিষ্যতের টেরাবাইট ফোনই হবে স্মার্টফোন যুগের সবচেয়ে বড় পদক্ষেপ।

পূর্বে প্রকাশিতঃ টেক ম্যাগজি

ফেসবুক পেইজঃ টেক ম্যাগজি ফেসবুক পেইজ

Love Technology!

(870)

Related posts:

মন্তব্য

মন্তব্য